Monday, June 24, 2024
HomeBreakingএটিএম থেকে টাকা তোলার সময় সাবধান

এটিএম থেকে টাকা তোলার সময় সাবধান

নিজস্ব সংবাদদাতা ,শিলিগুড়ি ২৯ মার্চ: এটিএম এ টাকা তুলতে গেলে সাবধান।

বয়স্কদের টার্গেট করে এটিএম-প্রতারণা, জালে ৫ চক্রী।ঘটনার সূত্রপাত গত ৪ঠা মার্চ। চন্দননগর কমিশনারেটের শ্রীরামপুর থানার মাহেশ এলাকার বাসিন্দা এক বয়স্কা মহিলা বাড়ির কাছের একটি এটিএম-এ টাকা তুলতে গিয়েছিলেন।

ঐ মহিলা চোখে একটু কম দেখেন। ডিজিটাল লেনদেনেও তেমন একটা স্বচ্ছন্দ নন তিনি। এটিএম কার্ডটা মেশিনে ঢোকাতে সামান্য অসুবিধে হচ্ছিল। সেই সময়ে এটিএম এর লাইনে দাঁড়িয়ে থাকা এক ব্যক্তি সাহায্য করার অছিলায় মহিলার কার্ডটি হাতে নেয়, এবং ওই সময়ে দেখে নেয় কার্ডের পিন নম্বর, এবং দ্রুত হাতসাফাইয়ে মহিলার কার্ডের সঙ্গে নিজের কার্ডটি বদলে নেয়।
এরপর, মহিলার কার্ডটি মেশিনে ঢুকিয়ে ৪০ হাজার টাকা তুলে নিয়ে নিমেষের মধ্যে হাওয়া হয়ে যায়। কার্ড বদলের ব্যাপারটা যতক্ষণে মহিলা বুঝতে পারলেন, ততক্ষণে যা ঘটার ঘটে গেছে।

আর কোন উপায় না দেখে অবশেষে পুলিশে অভিযোগ দায়ের করলেন ঐ মহিলা। তদন্তে নেমে দেখা যায়, একই ধরণের ঘটনা সম্প্রতি ঘটেছে চন্দননগর থানা এলাকাতেও। শ্রীরামপুর থানা এবং চন্দননগর কমিশনারেটের গোয়েন্দা বিভাগের বাছাই করা অফিসারদের নিয়ে গঠিত হয় বিশেষ তদন্তকারি দল। তদন্তকারী পুলিশ অফিসাররা তদন্ত করতে নেমে প্রথমেই হোচট খান। দুর্ভাগ্য, যে এটিএম-এ ঐ মহিলা প্রতারিত হয়েছিলেন, সেই এটিএম এর সিসিটিভি সেই সময় বিকল ছিল। এরপর ওই মহিলার থেকে প্রতারকের চেহারার বর্ণনা নেওয়া হয়। ঘাঁটা হয় শ্রীরামপুর-চন্দননগর এলাকার অন্তত শ’দেড়েক এটিএম-এর সিসিটিভি ফুটেজ। প্রায় পনের দিন দিনরাত পরিশ্রমের পর সূত্র মিলল প্রযুক্তি-প্রহরার সাহায্যেই, যার টেকনিক্যাল খুঁটিনাটি আপাতত গোপন রাখছে পুলিশ। তবে সবচেয়ে বড় সুখবর বাছাই করা তদন্তকারী অফিসারদের তদন্তে ধরা পড়েছে এটিএম-প্রতারণা-চক্রের ৫ সদস্য। যাদের কাজই ছিল বিভিন্ন এটিএম-এ ঘুরে ঘুরে বয়স্ক নাগরিকদের টার্গেট করা, এবং কার্ড ব্যবহারে সামান্য অস্বাচ্ছন্দ্য দেখলেই সাহায্য করার নামে পিন দেখে নেওয়া। এরপর কার্ডবদল এবং টাকা তুলে নিয়ে চম্পট দেওয়া।
শুধু এই রাজ্যেই নয়, পার্শ্ববর্তী রাজ্যেও এরা একই কীর্তি করে বেড়াত বলেই দাবি পুলিশের। গ্রেফতারের পর ধৃতদের কাছ থেকে উদ্ধার হয়েছে ২০০-রও বেশি এটিএম কার্ড।

দ্রুত তদন্ত শেষ করে প্রতারক-চক্রের প্রত্যেকের করা শাস্তি সুনিশ্চিত করার আশ্বাস দিয়েছে চন্দননগর পুলিশ কমিশনারেটের পুলিশ।
আপনিও সাবধান সতর্ক থাকবেন। এটিএমে টাকা তুলতে গেলে কক্ষে যেন আর কেউ না থাকে তা নিশ্চিত করুন। এটিএম এর সিকিউরিটি গার্ড ছাড়া অচেনা মানুষের সাহায্য নেবেন না। নিজে এটিএম সম্পর্কে সরগড় না হলে পরিবারের কাউকে নিয়ে এটিএম এ যান।

RELATED ARTICLES

Most Popular

Recent Comments